বুধবার, ১০ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
২৫শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
৯ই রবিউস সানি, ১৪৪২ হিজরি
ads

মিরকাদিমের ফাতেমা জেনারেল হাসপাতাল লক ডাউন

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধিঃ হাসপাতালের নার্সের শরীরে করোনা শনাক্ত হওয়ায় মিরকাদিম পৌর মেয়র ও ডাক্তার লাবনীর মালিকানা ফাতেমা জেনারেল হাসপাতল লক ডাউন করেছে সদর উপজেলা প্রশাসন। সোমবার দুপুরে মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা ভূমি সহকারী কর্মকর্তা ম্যাজিষ্ট্রেট শেখ মেজবাহ উল সাবেরিন হাসপাতালটি লক ডাউন করেন। এসময় হাসপাতালটিতে কর্মরত সকল স্টাপকে ১৪ দিনের হোম কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়েছে।
পরবর্তি নির্দেশনা না দেয়া পর্যন্ত হাসপাতালটি বন্ধ থাকবে বলে জানাগেছে।

স্থানীয়রা জানায়, মিরকাদিম পৌর মেয়ের শহিদুল ইসলাম শাহীন ও ডাক্তার লাবনীর মালিকানাদ্বীন ফাতেমা জেনারেল হাসপাতালে কর্মরত একজন নার্স (২৪) এর সোমবার করোনা পজেটিভ ধরা পরেছে। এর কয়েকদিন আগে তার সোয়াব সংগ্রহ করে স্বাস্থ্য বিভাগ। সেই নারী নার্স করোনা উপসর্গ নিয়ে দুইদিন আগে হাসপাতালটিতে ঘুরে যাওয়ার ফলে পুরো হাসপাতাল লক ডাউন করা হয়েছে। হোম কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়েছে হাসপাতালটির সকল স্টাপকে।

হাসপাতালটির মালিক মিরকাদিম পৌর মেয়র শহিদুল ইসলাম শাহীন জানান, হাসপাতালের এক নারী স্টাপ আক্রান্তের খবর পাওয়ার সাথে সাথে হাসপাতালের সকল কার্যক্রম বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। তবে আক্রান্ত ওই নারী স্টাপ ১৫ দিন যাবত ছুটিতে ছিলেন গত দুই দিন আগে তিনি হাসপাতালে বেতন নিতে আসে। তাই ঝুকি এরাতে হাসপাতালের কার্যক্রম আপদত বন্ধ রাখা হয়েছে।

লক ডাউনের বিষয়টি নিশ্চিত করে মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা ভূমি সহকারী কর্মকর্তা ম্যাজিষ্ট্রেট শেখ মেজবাহ উল সাবেরিন বলেন, বেসরকারি হাসপাতালটির একজন নার্সের করোনা পজেটিভ পাওয়া গেছে। তাই ঝুঁকি এড়াতে আপাদত হাসপাতলটি লকডাউন করা হয়েছে এবং তাদের সকল স্টাপকে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকতে বলা হয়েছে। পরবর্তি নির্দেশনা না দেয়া পর্যন্ত হাসপাতলটি লক ডাউনে থাকবে বলেও যানান তিনি।

Share with Others

শেয়ার করুন:

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on pinterest
Share on whatsapp
Share on email
Share on print

আরও পড়ুন:

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস

বাংলাদেশে

আক্রান্ত
১৭৮,৪৪৩
সুস্থ
৮৬,৪০৬
মৃত্যু
২,২৭৫

বিশ্বে

আক্রান্ত
৬০,২৭৫,২১০
সুস্থ
৪১,৬৯৪,৪০২
মৃত্যু
১,৪১৮,৩২০

আর্কাইভ