শুক্রবার, ১৭ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
২রা অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
১৪ই সফর, ১৪৪২ হিজরি
ads

গ্রামের কৃষকের ধান কেটে ঘরে পৌঁছে দিলো যুবলীগ নেতা আলামিন

দেশটুডে২৪ ডেস্ক: সারা দেশে শুরু হয়েছে বোরো ধান কাটা মৌসুম। কিন্তু চলমান করোনা দুর্যোগের কারণে মিলছে না পর্যাপ্ত ধান কাটা শ্রমিক। এ অবস্থায় খেতের পাকা ধান নিয়ে চিন্তায় পড়েন কৃষকরা। শ্রমিকের অভাবে যখন ধান নষ্ট হওয়ার শঙ্কায় পড়েছিলেন চাষিরা তখন তাদের ধান কাটতে স্বেচ্ছাশ্রমে বিভিন্ন স্থানে এগিয়ে আসেন বিভিন্ন সংগঠনের নেতা কর্মীরা।

এ ছাড়া কোথাও কোথাও স্থানীয় যুবকরা স্বেচ্ছাশ্রমে ধান কেটে দিচ্ছেন।

তারই ধারাবাহিকতায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া নবীনগর উপজেলায় শ্রমিক সংকটে পড়া কৃষকের ধান কেটে ঘরে তুলে দিয়েছেন দৈনিক যায় যায় কাল পত্রিকার সম্পাদক কেন্দ্রীয় যুব লীগের সাবেক সহ সম্পাদক আলামিনুল হক আলামিন সহ নবীনগর উপজেলা যুবলীগ,ছাত্রলীগ ও কৃষকলীগে’র নেতাকর্মীরা।

রবিবার জিনদপুর ইউনিয়নের মেরকোটা এলাকার চাষি আব্দুস সালামের প্রায় এক একর জমির ধান কেটে করে ঘরে তুলে দিয়েছেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা যুবলীগের সভাপতি সামস আলম,দপ্তর সম্পাদক রুহুল আমিন চিশতী,ধর্ম সম্পাদক কয়েস আহমেদ,উপজেলা যুবলীগ সদস্য শাহরীয়ার আনিস,লাউরফতেহপুর ইউনিয়ন কৃষকলীগের সভাপতি মোঃ মজনু রানা,ইউনিয়ন যুবলীগ নেতা শাহিনুর,উপজেলা ছাত্রলীগ নেতা মোঃ কাউছার আলম,ছাত্রলীগ নেতা সোহেল তানভীর,দক্ষিন বাঙ্গরা থানা ছাত্রলীগের আহবায়ক সদস্য মাহমুদুল হাসান সোহাগ, ছাত্রলীগ নেতা জুহান ফিদা প্রমুখ।

যুবলীগ সূত্রে জানা যায়, তৃণমূল পর্যায়ের প্রান্তিক কৃষক, যারা শ্রমিক সংকটে পাকা ধান ঘরে তুলতে পারছেন না,সেসব কৃষক বাছাইয়ের মাধ্যমে পর্যায়ক্রমে তাদের ধান কেটে দেয়া হবে।

যুবলীগের সাবেক সহ সম্পাদক আলামিনুল হক আলামিন বলেন, কৃষক কষ্ট করে ধান কাটে ও ঘাম ঝরিয়ে সেই ধানগুলোকে আগলে রেখে অন্নের জোগান দেয়। তাই কৃষকের কষ্ট লাঘবে প্রধানমন্ত্রীর আহ্বানে কেন্দ্রীয় যুবলীগের নির্দেশে কৃষকের ধান কেটে ঘরে তুলে দিয়েছি। আমাদের এ কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে।

Share with Others

শেয়ার করুন:

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on pinterest
Share on whatsapp
Share on email
Share on print

আরও পড়ুন:

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস

বাংলাদেশে

আক্রান্ত
১৭৮,৪৪৩
সুস্থ
৮৬,৪০৬
মৃত্যু
২,২৭৫

বিশ্বে

আক্রান্ত
৩৪,৪০২,৫৯৮
সুস্থ
২৫,৫৯০,৯২৫
মৃত্যু
১,০২২,৫৪২

আর্কাইভ