বুধবার, ১০ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
২৫শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
৯ই রবিউস সানি, ১৪৪২ হিজরি
ads

করোনা প্রতিরোধে কাজ করে যাচ্ছেন বীর মুক্তি যোদ্ধা আব্দুল জলিল মেম্বার

বাঞ্ছারামপুর প্রতিনিধি:
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বাঞ্ছারামপুর উপজেলার ছলিমাবাদ ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ড, কমলপুর এবং পাইকার চর মিলে এই ওয়ার্ড গঠিত। আর এই ওয়ার্ডের বর্তমান মেম্বার বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল জলিল। মহান স্বাধীনতা যুদ্ধে বাংলাদেশ স্বাধীন করার পেছনে রয়েছে আব্দুল জলিল মেম্বার এর গুরুত্বপূর্ণ অবদান। আব্দুল জলিল মেম্বার বঙ্গবন্ধুর আদর্শের সৈনিক হয়ে জিবন যাপন করছেন। তিনি আওয়ামীলীগের একজন ত্যাগী ও পরিক্ষীত কর্মী। বর্তমানে তিনি সাবেক সফল প্রতিমন্ত্রি ক্যাপ্টেন (অব: ) এবি তাজুল ইসলাম এমপির হাতকে শক্তিশালী করার জন্য ও আওয়ামলীগকে সুসংগঠিত করার জন্য ছলিমাবাদ ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের মুক্তিযোদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। জনগনের ভোটে ৪ বার নির্বাচিত হয়েছেন আব্দুল জলিল মেম্বার । তিনি ২০ বছর ধরে ছলিমাবাদ ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের প্রতিনিধিত্ব করে আসছেন। এবং সততা ও ন্যায় নিষ্ঠার সাথে এলাকার উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল জলিল মেম্বার । ওয়ার্ডের সকল অসহায় মানুষের সেবায় সর্বদা নিয়োজিত বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল জলিল মেম্বার। তিনি তার উন্নয়ন মূলক কর্মকান্ডের মাধ্যমে এলাকাবাসীর কাছে এখন বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে।
তবে বিশ^ব্যাপী মহামারী করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে থেমে নেই তিনি। জিবনের ঝুকি নিয়ে এলাকাবাসীর সেবায় এই বিপদের সময় নিয়োজিত। শুক্রবার সকালে ওয়ার্ডের প্রতিটি বাড়িতে ও রাস্তায় জিবানু নাশক মেশিন নিজের কাধে করে করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ করার জন্য কাজ করে যাচ্ছেন তিনি। তার এই ধরনের কর্মকান্ডের কারনে তিনি বর্তমানে ওয়ার্ড বাসীর কাছে এখন বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে।
বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল জলিল মেম্বার বলেন, ২০বছর ধরে আমি আমার ওয়ার্ডের জনসাধারনের সেবায় নিয়োজিত আছি। ওয়ার্ড বাসীর বিপদে আপদে আমি সর্বক্ষন তাদের সাথে আছি। আমি যতদিন বেচে থাকব ততদিন এই ওয়ার্ডের মানুষের সেবায় নিয়োজিত থাকতে চাই।

Share with Others

শেয়ার করুন:

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on pinterest
Share on whatsapp
Share on email
Share on print

আরও পড়ুন:

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস

বাংলাদেশে

আক্রান্ত
১৭৮,৪৪৩
সুস্থ
৮৬,৪০৬
মৃত্যু
২,২৭৫

বিশ্বে

আক্রান্ত
৬০,২৫৮,৩৬৩
সুস্থ
৪১,৬৮৮,৯৪৮
মৃত্যু
১,৪১৮,১২৬

আর্কাইভ